1. tahsanrakibkhan2@gmail.com : admin :
  2. dailymoon24@gmail.com : Fazlay Rabby : Fazlay Rabby
চিকিৎ’সা নিতে লন্ডন যেতে চান খালেদা জিয়া! - Dailymoon24
সোমবার, ০৭ জুন ২০২১, ০৮:৫৫ পূর্বাহ্ন

চিকিৎ’সা নিতে লন্ডন যেতে চান খালেদা জিয়া!

ফজলে রাব্বি
  • Update Time : সোমবার, ৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ১ View

বিএনপির চেয়ারাপরসন বেগম খালেদা জিয়ার কারা’বাসের তিন বছর পূর্তি আজ সোমবার (৮ ফেব্রুয়ারি)। শর্তসাপেক্ষে মু’ক্তি পেলেও পুরোপুরি মু’ক্ত নন বিএনপি প্রধান। দলটির নেতারা বলছেন, তাকে গৃহব’ন্দী করে রাখা হয়েছে। এ উপলক্ষে আজ ঢাকা মহানগরীসহ দেশে সব জে’লা ও মহানগরে প্রতিবাদ সমাবেশ ক’র্মসূচি পা’লন

 

করবে বিএনপি। দলীয় সূত্র জা’নায়, প্যারোলে মু’ক্ত বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার লন্ডন যাওয়ার পথ সুগম হচ্ছে। শারী’রিক অব’স্থা বিবে’চনায় নিয়ে তাকে বিদেশে যেতে দেয়ার ব্যাপারে সরকারের উচ্চ মহলের ইতিবাচক মনোভাবের কথা জা’না গেছে।

 

 

এ প্রক্রিয়া এগিয়ে নিতে ও তার জা’মিনের মেয়াদ বাড়াতে খালেদা জিয়ার পরিবারের সদস্যরাও সরকারের উচ্চ পর্যায়ে নিয়মিত যোগাযোগ রাখছেন। চলতি সপ্তাহেই পরিবারের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে আবেদন জা’নানো হবে দলটির নির্ভরযোগ্য সূত্র নি’শ্চিত করেছে।

 

দুটি দু’র্নীতির মা’মলায় ১৭ ব’ছরের কা’রাদ’ণ্ডে দ’ণ্ডিত খালেদা জিয়া ২৫ মাস জে’ল খা’টার পর গত বছরের ২৫ মা’র্চ জা’মিন পান। দুই মেয়াদে জা’মিনের মেয়াদ বাড়ানোর পর গত বছরের ২৪ সেপ্টেম্বর তার জা’মিনের মেয়াদ বাড়িয়ে আগামী ২৬ মা’র্চ পর্যন্ত করা হয়। এবার ছয় মাসের সেই জা’মিনের মেয়াদ শেষ হওয়ার পথে।

 

সূত্র জা’নায়, নতুন জা’মিনের জন্য ফের প্রধানমন্ত্রীর স’ঙ্গে সাক্ষাৎ করবে তার পরিবার। জা’মিনের মেয়াদ বাড়িয়ে খালেদাকে বিদেশে নিতে লিখিত আবেদনে প্রধানমন্ত্রীর অনুমতি চাইবেন তারা। সাক্ষাতে খালেদা জিয়ার পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জা’নিয়ে একটি শুভেচ্ছা চিঠিও নিয়ে যাওয়া হবে।

 

আবেদনের খসড়া প্র’স্তুত: bআগামী ২৬ মা’র্চের আগেই মেয়াদ বাড়াতে আবেদন করবে পরিবার। প্র’স্তুতির অংশ হিসেবে খালেদা জিয়ার আ’ইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেন, ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকনসহ চার আ’ইনজীবী খালেদা জিয়ার পরিবারের স’ঙ্গে সমন্বয় করে জা’মিনের মেয়াদ বাড়ানোর একটি খসড়া আবেদন তৈরি ক’রেছেন।

 

চলতি সপ্তাহেই সাজা স্থগিতের মেয়াদ বৃ’দ্ধির আবেদন করা হবে। তবে এসব বিষয়ে দলের নেতারা স’ম্পূর্ণ অন্ধকারে। তাদের বক্তব্য, দলীয় প্রধানের বিষয়ে স’ম্পূর্ণ সিদ্ধা’ন্ত তার পরিবারের। এর স’ঙ্গে দলের কোনো স’স্পর্ক নেই। জানতে চাইলে খন্দকার মাহবুব হোসেন বলেন, ‘ম্যাডাম ও তার পরিবার তো উন্নত চিকিৎ’সার জন্য বাইরে যেতে চাইবেন।

 

কারণ, তার আত্মীয়রা স্বা’স্থ্যের বিষয়টি দেখিয়ে মু’ক্তির আবেদন ক’রেছেন, সরকারও মানবিকভাবে তা গ্রহণ করেছে। মু’ক্তির মূল উদ্দেশ্য ছিল ভালো চিকিৎ’সা। কিন্তু সেই সুযোগ হয়নি। এখন তার পরিবারের পক্ষ থেকে আবেদন করা হবে এবং সরকার সেটাকে ইতিবাচক হিসেবে নেবে বলে আমি বিশ্বা’স করি।’

 

আবেদনটি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পাঠাতে হবে জা’নিয়ে তিনি বলেন, ‘এরপর এটিতে আ’ইন মন্ত্রণালয় মতামত দেবে। মু’ক্তি দেয়ার বিষয়টি সরকারের এখতিয়ার। সরকার চাইলে নির্বাহী আদেশে তাকে মু’ক্তি দিয়ে বিদেশে চিকিৎ’সা নেয়ার অনুমতি দেয়া হতে পারে।’

 

থেমে নেই সমঝোতার তৎপরতা: গত ২৬ মা’র্চ শর্তসাপেক্ষে মু’ক্তির পরও বসে নেই খালেদা জিয়ার পরিবার। সমঝোতার যে সূত্রে তার প্যারোলে মু’ক্তি হয়েছিল, উন্নত চিকিৎ’সার জন্য তাকে দেশের বাইরে নিতে সরকারের সেই সূত্রের স’ঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখছে।

 

এরইমধ্যে একবার বৈঠকও হয়েছে দুপক্ষের। কিন্তু দুপক্ষের কেউই এসব নিয়ে মুখ খুলছে না। সরকারের পক্ষ থেকে সবুজ সংকেত পেয়েই করো’না র অজুহাতে দেশের কোনো হাসপাতালে খালেদা জিয়ার চিকিৎ’সা করানো হয়নি।

 

লন্ডন পা’ঠানো র প্র’স্তুতি শুরু: উন্নত চিকিৎ’সার জন্য সরকার ও পরিবারের সমঝোতার মাধ্যমে খালেদা জিয়াকে লন্ডনে পা’ঠানো র প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। খালেদা জিয়ার ভাই শামীম এসকান্দার ব্রিটিশ হাইকমি’শনে তার এবং বোন খালেদা জিয়ার পাসপোর্টসহ কাগজপত্র জমা দিয়েছেন।

 

এর আগে কূটনৈতিক মহলও এ নিয়ে বেশ উদ্যো’গী হয়। সরকার অনুমতি দিলে ব্রিটিশ হাইকমি’শন খালেদা জিয়ার চিকিৎ’সার জন্য ভিসা দেয়ার ঘো’ষণা দেয়। এ প্রস’ঙ্গে ব্রিটিশ হাইকমি’শনার রবার্ট ডিকসন জা’নিয়েছিলেন, সরকার অনুমতি দিলে খালেদা জিয়াকে চিকিৎ’সার জন্য তারা ব্রিটেন যেতে ভিসা দেবেন।

 

সরকারের দুই শর্ত: সরাসরি রাজনীতি থেকে অবসরের কথা না বললেও খালেদা জিয়াকে চিকিৎ’সার জন্য লন্ডনে যেতে সরকারের পক্ষ থেকে দুটি শর্তের কথা জা’নানো হয়েছে। প্রথমত, লন্ডনে গিয়েও চিকিৎ’সার প্রয়োজন ছাড়া প্র’কাশ্যে চলাফেরা ক’রতে পারবেন না তিনি। গুলশানে যেভাবে বাস করছেন লন্ডনে ঠিক তেমনি থাকবেন।

 

 

দ্বিতীয়ত, বিদেশিদের স’ঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ থেকে বিরত থাকবেন। লন্ডনে থাকা অব’স্থায় রাজনৈতিক বক্তব্য-বিবৃতি দেয়া ও সভা-সমাবেশে যোগদান থেকে বিরত থাকা এবং নেতাক’র্মী দের স’ঙ্গে সাক্ষাৎ ক’রতে পারবেন না। এক্ষেত্রে খালেদার পরিবার চায় শর্ত মেনেই চিকিৎ’সার জন্য লন্ডনে যাবেন তিনি। তবে খালেদা জিয়া চান শর্ত ছাড়াই লন্ডন যেতে।

 

জানতে চাইলে খালেদা জিয়ার বোন সেলিমা ইসলাম বলেন, ‘জা’মিনের পরে তিনি এখন পর্যন্ত কোনো শর্ত ভঙ্গ করেননি। তাই এ ব্যাপারে সরকার ক’ঠোর হবে না। তার বিদেশে চিকিৎ’সার প্রয়োজন। খালেদা জিয়ার শা’রীরিক অবস্থার এখনও তেমন উন্নতি হয়নি। চলাফেরাও ক’রতে পারছেন না। মু’ক্তির মেয়াদ বাড়াতে আবেদন তো ক’রতেই হবে। তবে কখন করব সে ব্যাপারে এখনও সিদ্ধা’ন্ত হয়নি।’

 

শ’রীরের সর্বশেষ অবস্থা: খালেদা জিয়ার অবস্থা স্থিতিশীল রয়েছে। পুরোনো অস্টিও আর্থাইটিস, ডায়াবেটিসসহ অন্য সব রো’গই আগের চেয়ে বেড়েছে। একা চলাফেরা ক’রতে পারেন না। জয়েন্টে জয়েন্টে ব্য’থা কমেনি। বাসায় দুজন নার্স স্থা’য়ীভাবে রাখা হয়েছে। তারা বাসায় থেকেই তার স্বা’স্থ্যের সার্বক্ষণিক খোঁ’জখবর রাখছেন এবং ফিজিওথেরাপি দিচ্ছেন।

 

এ ছাড়া তার মেরুদণ্ড, বাম হাত ও ঘাড়ের দিকে শক্ত হয়ে যায়। দুই হাঁটু প্রতিস্থাপন করা আছে। তিনি র’ক্তচা’প নি’য়ন্ত্রণের ওষুধ খান। বাম চোখেও বেশ স’মস্যা রয়েছে তার। সার্বিকভাবে চিকিৎ’সা তদারকি করছেন তার পুত্রবধূ ডা. জোবায়দা রহমান।

 

ফিরোজায় যেভাবে কাটে দিন: খোঁজ নিয়ে জা’না গেছে, খালেদা জিয়া নিয়মিত পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ প’ড়েন ও কোরআন তিলাওয়াত করেন। পত্রিকা প’ড়েন ও টিভির খবর দেখেন। লন্ডনে নাতনিদের স’ঙ্গে ভিডিওকলে কথা বলেন। বিকেলে চেয়ার পেতে বারান্দায় বসে থাকেন। ডায়াবেটিস থাকায় সত’র্কভাবে খাবার খাচ্ছেন তিনি।

 

স্যুপ, সবজি, রুটি, মুরগি, লাউ ও মাছের ঝোলের তরকারি ও সরু চালের ভাত ও পোলাও খান তিনি। বাসায় পুরোনো বাবুর্চিরাই রয়েছেন। অনেকসময় পরিবারের সদস্যরা বাসা থেকে রান্না করেও খাবার নিয়ে আসেন। প্রয়োজন হলে দলের কাউকে ডেকে পাঠান বিএনপি প্রধান নিজেই। তবে মেডিকেল টিম যাচ্ছে মাঝে-মধ্যে। প্রতিদিনই একজন

 

চিকি’ৎসক ডায়াবেটিস ও উচ্চ র’ক্তচা’প পরীক্ষা করেন। বিশেষজ্ঞ চিকি’ৎসকদলও যায় মাঝে-মধ্যে। ওষুধ খেয়ে ডায়াবেটিস নি’য়ন্ত্রণের চেষ্টা করেন তিনি। এখন নিয়মিত ডায়াবেটিসের মাত্রা ৮ থেকে ১৪’র মধ্যে ওঠানামা করে।

 

খালেদা জিয়ার ব্য’ক্তিগত চিকি’ৎসকদলের সিনিয়র সদস্য ও বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন বলেন, ‘ম্যাডামের শা’রীরিক অবস্থা আগের মতোই। ডায়াবেটিস এখনো ওঠানামা করে। আগে জয়েন্টে জয়েন্টে যে ব্য’থা ছিল সেগুলো এখনো আছে। তিনি আগের মতো হাঁটাচলা ক’রতে পারেন না।’

 

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021  dailymoon24.com
Theme Customized BY IT Rony