রোজা ভাঙলে আইফোন ১২ ‘প্রাংক’, বিশ্বজুড়ে ভিডিও ভাইরাল

রহমত-বরকতের রমজান মুসলমানদের জন্য স্বর্গীয় পবিত্রতা নিয়ে আসে। বছরের এই সময়টাতে ইসলাম

ধ’র্মাবলম্বীরা রোজা রাখেন—সব ধরনের পান ও আহার থেকে বিরত থাকেন। এমন কোনো বিষয়েও তারা জড়িত

 

হন না, যাতে রোজা হালকা হয়ে যাবে। কিন্তু বড় কোনো পার্থিব লোভ কিংবা পুরস্কারের বিনিময়ে কোনো

মুসলমানকে কি রোজা ভাঙবেন? পর্যাপ্ত যৌক্তিক কারণ ছাড়া রোজা ভাঙার বিধান নেই। কিন্তু কেউ ভেঙে ফেললে

 

একটি রোজার বদলে পুরো একমাস রোজা রাখতে হবে। অথবা কাফফারা দিতে হবে। এমনকি রোজাকে দুর্বল করে

দিতে পারে—এমন কার্যক্রম থেকেও দূরে থাকতে মুসলমানদের উপদেশ দেওয়া হয়েছে। একটি ভিডিও চ্যালেঞ্জে

 

দেখা যায়, এক ইউটিউবার এক রোজাদারকে থামালেন। পানি খেয়ে রোজা ভাঙলে তাকে একটি আইফোন ১২ প্রো

ম্যাক্স উপহার দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেন। তখন ওই রোজাদার সরাসরি তার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেন। তিনি বলেন,

 

রোজা ভাঙা হারাম। কোনো মুসলমানকে এমন অনুরোধ করাও উচিত না। এরপর এক আরবিভাষী আসেন

সেখানে, তাকেও একই প্রস্তাব দেওয়া হয়। কিন্তু তিনি আইফোনের বিনিময়ে রোজা ভাঙতে রাজি হয়ে যান। কিন্তু

 

তখন প্রথম প্রস্তাব পাওয়া ব্যক্তিটি তার কাছ থেকে বোতল কেড়ে নিয়ে মাটিতে পানি ঢেলে দেন। তখন ওই

আরভিভাষী মাটি থেকে পানি লেহন করতেও রাজি হয়ে যান, যদি তাকে আইফোন দেওয়া হয়। শেষ পর্যন্ত পাশে

 

থাকা ব্যক্তির বাধায় তা পেরে ওঠেননি। পরবর্তীতে রোজা রাখায় অনমনীয়তার জন্য ওই ব্যক্তিকে আইফোনটি

উপহার দেওয়া হয়। আসলে এটি ছিল একটি প্রাংক ভিডিও। ওই আরবিভাষীও যার অংশ ছিলেন। পরে ভিডিওটি

 

সামাজিকমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যায়। হোয়াটস্যাপের উন্ডেড সোলে ভিডিওটি ১৫ দশমিক ৮ মিলিয়ন বার দেখা

হয়েছে। আরেকটি ভিডিও চ্যানেলে এটি দেখা হয়েছে ১২ মিলিয়নের বেশি বার। সামাজিকমাধ্যম ফেসবুকেও ঝড়

তুলেছে ভিডিওটি।

 

 

Check Also

‘আসতে পারে তৃতীয় ঢেউ, লকডাউনেও কাজ হবে না’

পার্শবর্তী দেশ ভারতে সঙ্ক’টের মেঘ কাটার কোনও ইঙ্গিত নেই। উল্টো নতুন আশঙ্কার কথা শোনালেন ‘অল …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *