আমি একজন বয়স্ক কুমা’রী মেয়ে, যে বিয়ের ট্রেন ফেল করেছে

আমি একজন বয়স্ক কুমা’রী মেয়ে, যে বিয়ের ট্রেন ফেল করেছে

বাবার গৃহে আমি ছিলাম খুবই আদুরে মেয়ে । আমা’র কোনো চাওয়াই অ’পূর্ণ থাকত না । পাঁচ ভাইয়ের

একটি মাত্র বোন বলে আমা’র স্নেহ – ভালোবাসা ও আদর – যত্নেও কোনো ত্রুটি হতো না।

❑ সবাই আমা’র প্রতি বিশেষভাবে খেয়াল রাখত । আমা’র সকল আবদার পরিবারের সকলে বিনা

 

বাক্য ব্যয়ে মেনে নিত । আর আমা’র চেতনার পুরােটা জুড়েই ছিল পড়ালেখা ।

লেখাপড়া ছাড়া অন্য কোনো দিকে মনোযোগ দিতে আমি মোটেও রাজি হতাম না । আর এতে

আমা’র সাফল্যও ছিল বেশ ঈর্ষণীয় । তাই সকলের কৌতূহলী দৃষ্টি আমাকে অনুক্ষণ ঘিরে রাখত

 

এবং সবাই আমাকে একটু কাছে পেতে উদগ্রীব থাকত । আমা’র সময়গুলো বরাবরের মতো বেশ

ভালোই কাটছিল । সময়ের পরিক্রমায় আমি মাধ্যমিক স্তরে উত্তীর্ণ হলাম ।

❑ একদিন মায়ের দেওয়া একটি সংবাদে প্রথম বারের মতো কাঁপুনি ধরল আমা’র হৃদয়ে । তিনি

 

বললেন , অমুক তোমাকে বিয়ের প্রস্তাব পাঠিয়েছে । তখন আমি কিছুটা আশ্চর্য ও অহংকার – মাখা

স্বরে বললাম , পরিবারের লোকেরা কি আমাকে নিয়ে তামাশা করছে !? এই যে প্রস্তাব আসা শুরু হলো

— এর পর থেকে এত ঘন ঘন প্রস্তাব আসতে লাগল যে , আমা’র অন্য বান্ধবীদের সবার মিলেও বোধহয়

 

এত প্রস্তাব আসত না । একবার তো এক বান্ধবীকে গো’পনে বলেই ফেললাম , মনে হচ্ছে আমাদের

শহরের সব যুবকই আমা’র কাছে বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে আসবে , কেউ আর বাকি থাকবে না ।

❑ আমি বিশ্ববিদ্যালয়ে পদার্পণ করা পর্যন্ত প্রস্তাব আসার এই ধারা অব্যাহত থাকল । তবে এ ক্ষেত্রে

 

প্রস্তাবের ধরনে কিছুটা পরিবর্তন এল । আমি সর্বদা একই প্রশ্ন করতাম , ছে’লের যোগ্যতা কী’ ?

তার মধ্যে কী’ কী’ গুণ আছে ? আমি তোমাদের কাছ থেকে কিছুই লুকাব না ।

বিভিন্ন গুণ ও বৈশিষ্ট্যের অধিকারী তরুণেরা , বিচিত্র সব পেশার যুবকেরা এবং সম্রান্ত পরিবারের

 

ছে’লেরা আমা’র পরিবারের কাছে সম্বন্ধ পাঠাত । বরং আমি তাে এই পর্যন্ত বলব , একবার ‘

❑ আব্দুল্লাহ নামের অসাধারণ এক যুবক বিয়ের প্রস্তাব দেয় , যে জ্ঞানে – গুণে এতটা সমৃদ্ধ ছিল যে ,

আর দশজন পুরুষ মিলেও তার কাছে ঘেঁষতে পারবে না । তবুও আমি তার প্রস্তাব ফিরিয়ে দিলাম ।

 

কারণ , আমি সুন্দরী , আমি মেধাবী — আমা’র একটা অবস্থান আছে ।

পড়ালেখার পাট চুকিয়ে যখন কর্মজীবনে পা রাখলাম , সম্বন্ধ আসর ধারা । আরও বেড়ে গেল।

তবে এতে কিছুটা পরিবর্তন দেখা গেল । যারা প্রস্তাব নিয়ে আসছে তাদের বয়স খানিকটা বেশি — ত্রিশের

 

আশেপাশে ! যদিও আমা’র অন্তরে বিপদঘণ্টা বেজেই চলছিল , কিন্তু আজকের আগে কখনােই তা  আমি শুনতে পাইনি ।

❑ সময় তার গতিতে বয়ে চলছে । এরই মধ্যে এমন একটি প্রস্তাব এল , যা আমাকে ভীষণভাবে নাড়া দেয় ।

জানো , সেটা কী’ ? এমন এক লােক প্রস্তাব নিয়ে আসে , যে তার স্ত্রী’কে তালাক দিয়েছে এবং তার একটি স

ন্তান আছে ।

 

এরূপ প্রস্তাব পেয়ে প্রথমে বড় একটা ধাক্কা খেলাম । পরক্ষণেই বললাম , বেচারি ! আমা’র অবস্থা জানে না ,

আমি কে ? তার জন্য আমা’র এক ধরনের করুণা হলাে ।

❑ দিন যায় , সপ্তাহ গড়ায় , মাস ফুরায় , এদিকে আমা’র বয়সও বাড়তে থাকে । কিন্তু সেদিকে আমা’র কোনাে

 

খেয়াল নেই । আমি আমা’র কাজে নিমগ্ন । বয়সের সাথে পাল্লা দিয়ে একদিকে আমা’র দৈহিক লাবণ্য ও

কমনীয়তা কমতে থাকে ; অ’পরদিকে ক্রমশ বড় হতে থাকে আমা’র কাজের চাপ ও দায়িত্বের পরিধি ,

চিন্তা – ভাবনায়ও আসতে থাকে বড় ধরনের পরিবর্তন ।

 

আমি সকলের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিতে থাকি আর আব্দুল্লাহর মতাে এক তরুণের প্রস্তাব পাওয়ার আশায় অধীর

আগ্রহে প্রতীক্ষার প্রহর গুনি । জানি,না কার স’ন্তান আমার পেটে, স্বা’মী নাকি দে’বরের… -জানি,না কার স’ন্তান

আমার পেটে, স্বা’মী নাকি দে’বরের…জানি,না কার স’ন্তান আমার পেটে, স্বা’মী নাকি দে’বরের…

 

সে’ক্স করতে পাগল হয়ে উঠবে মে’য়েরা। জেনে নিন ঔষধের নাম? – সে’ক্স করতে পাগল হয়ে উঠবে মে’য়েরা।

জেনে নিন ঔষধের নাম?সে’ক্স করতে পাগল হয়ে উঠবে মে’য়েরা। জেনে নিন ঔষধের নাম?

গ’র্ভাব’স্থায় কত মাস পর্যন্ত স’হবাস করা উচিত? জেনে রাখুন – গ’র্ভাব’স্থায় কত মাস পর্যন্ত স’হবাস করা উচিত?

 

জেনে রাখুনগ’র্ভাব’স্থায় কত মাস পর্যন্ত স’হবাস করা উচিত? জেনে রাখুন ❑ কিন্তু আমা’র আশায় গুড়ে বালি !

প্রবাদ আছে , পাখি উড়ে গেছে । তার খাবার নিয়ে । আব্দুল্লাহ এখন চার সন্তানের বাবা আর আমি বেচারা এখনও

কুমা’রী বুড়ি আমি আমি গেল আমা’র বয়স এখন ত্রিশ ছুঁইছুঁই । আশ’ঙ্কাগুলো ঘনীভূত হয়ে আসছে ক্রমশ ধীরে

 

ধীরে কঠিন হয়ে উঠছে জীবন ! এই তো আমা’র বান্ধবী ফাতিমা , সে এখন চার সন্তানের মা ।

অ’পর বান্ধবীর কোলজুড়ে চাদের মতো ফুটফুটে দুটি মেয়ে । আরেক বান্ধবী স্বামীকে নিয়ে কী

’ যে সুখে দিন । কা’টাচ্ছে ! অথচ , তাদের আর্থিক অবস্থা নিতান্তই সাধারণ । আর আমি ….!

 

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 NewsTheme
Design BY jobbazarbd.com