আ’লোচিত সেই চেয়ারম্যানের বি’রুদ্ধে অ’ভিযোগের পাহাড়

ক’ক্সবাজারের চকরিয়ার হারবাং ইউপি চেয়ারম্যান মিরানুল ইস’লামের বি’রুদ্ধে খাদেমকে পি’টিয়ে

মাজারের স’ম্পত্তি দখল করার অ’ভিযোগ উঠেছে। তার বি’রুদ্ধে নারী নি’র্যাতন, ত্রাণ আ’ত্মসা’ৎ,

জমি দখল ও বনভূমি দখ’লসহ অ’ভিযোগের পাহাড় রয়েছে বলে দাবি করেছেন স্থা’নীয়রা।

 

গত ২৩ আগস্ট গরু চু’রির দায়ে মা-মেয়েকে পা’শবিক শা’রীরিক নি’র্যাতন করে এবং কোম’রে রশি

বেঁ’ধে মি’থ্যা মা’মলা দিয়ে থা’নায় সো’পর্দ করেন ওই ইউপি চেয়ারম্যান। এ ঘটনা সামাজিক যোগাযোগ

মাধ্যমে নানাভাবে প্রকাশিত হলে দেশব্যাপী তো’লপাড় শুরু হয়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে জে’লা প্র’শাসনের

 

নি’র্দেশে স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক শ্রা’বন্তী রায়কে প্রদান করে দ্রুত গতিতে তিন স’দস্যের

ত’দন্ত কমিটি গঠিত হয়। ত’দন্ত টিম রোববার বিকেল তিনটায় ঘটনা’স্থল পরিদ’র্শন করেন এবং ইউপি

চে’য়ারম্যানের সঙ্গে তার কা’র্যালয়ে সা’ক্ষাৎ করেন।

 

ত’দন্ত টিমের প্রধান অ’পেক্ষমাণ গণমাধ্যমক’র্মীদের সঙ্গে কোনো কথা না বলে চলে যান।

এদিকে ইউপি চেয়ারম্যানের বি’রুদ্ধে অ’ভিযোগ করে স্থানীয় হামিদুল হক জানান, হারবাং

স্টেশনে ১০ একর বনভূমি এরইমধ্যে তিনি দখলে নিয়েছেন। দ’খলকৃত জমিতে তিনি বহুতল বাণি’জ্যিক

 

ভবন তৈরি করেছেন। এ ব্যাপারে বনবিভাগের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তারা ঘটনার স’ত্যতা স্বীকার করেন।

এদিকে গত তিন বছর আগে স্থানীয় একটি মাজারে খাদেমকে বেদম পি’টিয়ে মাজারের সবটুকু জমি ও

মাজারের সব স’ম্পত্তি দখলে নিয়েছিলেন ইউপি চেয়ারম্যান মিরানুল ইস’লাম।

 

 

এ ব্যাপারে মা’মলা করা হলে ওই মা’মলায় চেয়ারম্যান জে’ল খেটেছেন বেশ কিছুদিন। বিচারের নামে

উ’ৎকোচ গ্রহণ সরকারি বরাদ্দকৃত ত্রাণ সাম’গ্রী আ’ত্মসাৎ’সহ নানা অ’ভিযোগ রয়েছে ওই চে’য়ারম্যানের

বি’রুদ্ধে। বিচারের নামে এলাকার নিরীহ জনগণকে হয়’রানি করার অ’ভিযোগ তার বি’রুদ্ধে দী’র্ঘদিনের।

 

এ ব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যান মিরানুল ইস’লামের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি অ’ভিযোগ ভিত্তিহীন মি’থ্যা

বলে দাবি করেন। সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি অ’ভিযোগ ভিত্তিহীন মি’থ্যা বলে দাবি করেন।

 

 

Check Also

Shahriyar Afsan Ovro is a young and successful digital marketing influencer

Shahriyar Afsan Ovro is an Bangladeshi music artist, entrepreneur who has made a big name …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *