Breaking News

বদলি করা হয়েছে ডিএমপির তিন কর্মকর্তাকে

বদলি করা হয়েছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) পুলিশ পরিদর্শক পদমর্যাদার তিন

কর্মকর্তাকে। সোমবার (২৯ মার্চ) ডিএমপি কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক অফিস

 

আদেশে এ বদলি করা হয়। বুধবার (৩১ মার্চ) সকালে ডিএমপি মিডিয়া থেকে এ বদলির আদেশ জানানো

হয়। ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের লাইনওআর-এ কর্মরত পুলিশ পরিদর্শক (শহর ও যানবাহন) লোকমান

 

হোসেনকে ট্রাফিক রমনা বিভাগ, পুলিশ পরিদর্শক (শহর ও যানবাহন) কামরুল হাসানকে ট্রাফিক

গুলশান বিভাগ ও পুলিশ পরিদর্শক (শহর ও যানবাহন) আবু বকর মো. হেলালকে ট্রাফিক ওয়ারী

বিভাগে বদলি করা হয়েছে।

 

আওয়ামী লীগ থেকে পদত্যাগের ঘোষণা কাদের মির্জার

বসুরহাট পৌরসভার আলোচিত মেয়র আবদুল কাদের মির্জা আওয়ামী লীগ থেকে পদত্যাগের ঘোষণা

দিয়েছেন। বুধবার দুপুর পৌনে ১২ টায় ফেসবুক লাইভে এবং স্ট্যাটাসে তিনি এ ঘোষণা দেন। তিনি

 

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ছিলেন। লাইভে কাদের মির্জা বলেন, আমি

সব অ’নিয়’মকারীদের বিরুদ্ধে কথা বলে এখন সবার কাছে খারাপ হয়ে গেছি। যে দলে সম্মান নাই সেখানে

 

আমি থাকবো না। আমি বঙ্গবন্ধু শিক্ষা ও গবেষণা পরিষদের সদস্য হয়েছি সেখানে থেকেই কাজ করবো।

বিদায় বেলায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আপনি একসাথে না পারলেও আস্তে আস্তে

 

.দলের দু’র্নী’তিবাজদের লাগাম টেনে ধরুন। যারা বেশি অনি’য়’মকারী তাদেরকে দল থেকে বের করে দিন।

‘প্রধানমন্ত্রীকে বলবো আপনি মাদ’কের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা করেছেন, কিন্তু আপনার প্রশাসন

 

মাদ’ককে সহযোগিতা করছে। আর এখনি ঘোষণা দিন যে, সংসদ সদস্যসহ যে কোনো প্রতিনিধি বা পদে

আসতে মা’দক ও নারীর সাথে থাকতে পারবে না। ডো’ব টেস্ট করে চাকরিতে যোগদান করান।’ ঢাকাতে

 

সব দল একদল হয়ে গেছে দাবি করে কাদের মির্জা বলেন, দিনের বেলা আলাদা রাজনীতি করলেও রাতের

বেলা আ.লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি মিলে হোটেলে একসাথ হয়ে যায়। এরা ‘জাতীয় অ’পক’র্ম পার্টি’ গঠন

করেছে বলেও মন্তব্য করেন কাদের মির্জা।

 

ওবায়দুল কাদেরের সমালোচনা করে বলেন, তিনি পদপদবীর জন্য অ’পশ’ক্তিদের কাছে মাথা নত

করেছেন। যেদিন আমার ছোটভাই (দেলোয়ার) ফাঁ’সি দিয়ে মা’রা গেছে সে দিনই তার সাথে (ওবায়দুল

কাদের) সম্পর্ক মানসিকভাবে দুরে সরে গেছে।

 

কাদের মির্জা ওবায়দুল কাদেরের সাবেক এপিএস বর্তমানে সুপ্রিম কোর্টের ডেপুটি এটর্নি জেনারেল

অ্যাডভোকেট আমিন উদ্দিন মানিকের সমালোচনা করে বলেছেন, সে চাকরিপ্রার্থী অনেক নারীর সাথে

অনিয়ম করেছে, অবশেষে বিয়েও করেছেন অনিয়ম করে।

এছাড়া ফেসবুকে দেওয়া স্ট্যাটাসে কাদের মির্জা বলেন, আমি কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের

সদস্য পদ থেকে পদত্যাগ করলাম। ভবিষ্যতে কোনো রকম কোনো জনপ্রতিনিধি নির্বাচনে অংশগ্রহণ

করব না এবং ভবিষ্যতে আমি কোনো রকম কোনো দলীয় পদ-পদবির দায়িত্ব নেব না।

 

এদিকে পদত্যাগ করলে কাদের মির্জার মেয়র পদ বাহাল থাকবে কিনা, এবিষয়ে নির্বাচন কমিশনার

মাহবুব তালুকদার বলেন, এটা আইনের বিষয়, আইনমন্ত্রালয় ভালো বলতে পারবে। কাদের মির্জা .

আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতিক নিয়ে বসুরহাট পৌরসভার মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন

 

 

Check Also

একসঙ্গে মা-মেয়ের বিয়ে! বিস্তারিত জানুন

একসঙ্গে মা-মেয়ের বিয়ে! কারণ জানলে আপনিও সমর্থন জানাবেন! বয়স কেবল সংখ্যামাত্র। বিভিন্ন ক্ষেত্রেই এই কথাটি …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *